Tepantor

নবীনগরে সম্পত্তির লোভে পিতাকে পুত্রের অপহরণ

১৫ নভেম্বর, ২০২২ : ১১:০৩ অপরাহ্ণ ১৫৩

ছবি: অনুসন্ধানী টিম লিডার সাংবাদিক বাবুল ও জালাল

মো. সফর মিয়া: ব্রাহ্মণবাড়িয়া নবীনগর পৌর এলাকার কোনাঘাট মোড় থেকে সেনেটারী ব্যবসায়ি জালাল মিয়াকে( ৬২) রবিবার (১২ ই নভেম্বর) তারপুত্র জুয়েল অপহরণ করে।জালাল নবীনগর পৌর এলাকার মাঝিকাড়া গ্রামের মৃত আহমদ আলীর সন্তান।

এ ঘটনায় এলাকায় চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়।বিষয়টি সাংবাদিক বাবুলের নেতৃত্বে একটি অনুসন্ধানি টিম দিনরাত কঠোর পরিশ্রম করে অপহরণ হওয়া সেনেটারি ব্যবসায়ী জালাল মিয়াকে উদ্ধার করে।সাংবাদিক বাবুলের দেয়া তথ্য মতে জানা যায়,প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হয়ে ছিল কালো পোশাকে প্রশাসন উঠিয়ে নিয়ে গেছে। কিন্তু rabএর সকল ক্যাম্পে তথ্য নিয়ে জানা যায় তাদের পক্ষ থেকে উঠানো হয়নি।পরিশেষে মোবাইল কলের তথ্য অনুসন্ধান করে নিশ্চিত হয়েছে তার পুত্র জুয়েলই তাকে সম্পদের লোভে অপহরণ করেছে ।ঠিকানা অনুযায়ী ঘটনা নিশ্চিত হয়ে প্রথমে সাভার উপজেলার ভাওয়ালিপাড়া তার মেয়ের বাসায় পরে প্বার্শবতী এলাকার কৃষ্ণনগরে তার সমন্ধী অবসর প্রাপ্ত বি জি বি কামালের বাসায় অনুসন্ধান কর হয়।ঐ অনুসন্ধানে পুত্র জুয়েলের নতুন বাসা সাভার উপজেলার তেঁতুলঝোড়া ইউনিয়নের কালীনগর রয়েছে বলে তথ্য পাওয়া যায়। তথ্য অনুযায়ী ১৩ নভেম্বর সকাল ৬ঃ৩০ মিনিটে কালীনগর অনুসন্ধান করে ঐ ওয়ার্ড মেম্বার মিন্টুর নিকট জুয়েলের মামা আজিজুল স্বীকার করেন জুয়েলই উঠিয়ে এনেছে।জুয়েলের মামার তথ্য সূত্রে বাসায় তল্লাশি চালিয়ে জালাল মিয়ার সন্ধান না পাওয়ায় এবং জুয়েল পলাতক থাকায় ঐ ওয়ার্ড মেম্বার ও এলাকার লোকজন ধারণা করছে জুয়েল তার পিতাকে অপহরণ করে হত্যা করে লাশ গুম করে ফেলেছে। এবং দ্রুত বাদী হয়ে ব্রাহ্মণবাড়িয়া নবীনগর থানায় মামলা করার পরামর্শ প্রদান করেন।পরবর্তীতে পূনরায় জাতীয় শ্রমিক লীগ ঢাকা জেলা শাখার উদ্যোগে স্থানীয়ভাবে নেতাকর্মীদের মাধ্যমে চাপ প্রয়োগ করায় ১৫ নভেম্বর অনুসন্ধানি টিমের সদস্য
সাংবাদিক বাবুলের নিকট জাতীয় শ্রমিক লীগ ঢাকা জেলা শাখার নেতাকর্মীদের সামনে অপহরন হওয়া জালাল মিয়াকে হস্তান্তর করেন।

এবিষয়ে অপহরণ হওয়া জালাল মিয়া জানান,আমার ছেলে জুয়েল বিদেশ থেকে এসে জায়গা বিক্রি করে টাকা দিতে বললে আমি জায়গা বিক্রি করবনা বলে সাফ জানিয়ে দিলে সে আমাকে পাগল সাজিয়ে নবীনগর থেকে অপহরণ করে নিয়ে আসে এবং একটি মানসিক হাসপাতালে ভর্তি করে দেয়,পরবর্তীতে সাংবাদিক বাবুল ও শ্রমিক লীগের চাপে আমাকে ঐখান থেকে জুয়েলের বউ বিলকিস মুক্ত করে এনে তাদের কাছে হস্তান্তর করে। বাড়িতে পৌঁছে সিদ্ধান্ত নিব এবিষয়ে কি করা যায়।

Tepantor

তেপান্তরে প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।