ব্রাহ্মণবাড়িয়ার মধ্যপাড়ায় অস্ত্র নিয়ে মাদক ব্যবসায়ীদের মহড়া

১২ এপ্রিল, ২০২০ : ৯:১৬ অপরাহ্ণ ৬০৫৩

আসাদুজ্জামান আসাদ: ব্রাহ্মণবাড়িয়া শহরের মধ্যপাড়ার ইমামবাগ এলাকায় একদল মাদক ব্যাবসায়ী অস্ত্র-সস্ত্র নিয়ে মহড়া দিয়েছে। রোববার (১২ এপ্রিল) বিকেল ৪টায় এই ঘটনা ঘটে। একটি বিচার শালিশকে কেন্দ্র করে ইমামবাগ এলাকা ও বাইরের এলাকার কিছু মাদক ব্যাবসায়ী মিলে এই মহড়া দেয়। এসময় এলাকায় আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে। তখন এলাকাবাসী ও পুলিশ তাদের ধাওয়া করলে মাদক ব্যাবসায়ীরা পালিয়ে যায়।

এলাকাবাসী সূত্রে জানা যায়,গতকাল শনিবার বিকালে ইমামবাগ মসজিদ এর সামনে মাদক বিক্রির সময় বাদল মিয়া নামের এক মাদক ব্যবসায়ীকে এলাকাবাসী আটক করে।কিন্তু এলাকার ছেলে হওয়ায় এলাকাগতভাবে বিচার-শালিস হবে বলে ছেড়ে দেওয়া হয়।পরে আজ রোববার বিকালে এলাকার সব মাদক ব্যবসায়ীদের নিয়ে বিচার বসার কথা ছিল।এই কারনে ক্ষুব্ধ হয়ে মাদক ব্যবসায়ীরা হামলার উদ্যেশ্যে অস্ত্র মহড়া দিয়েছে। পরে পুলিশ আসলে তারা পালিয়ে যায়।

ইমামবাগ মসজিদ কমিটির সভাপতি ও জেলা আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মাহবুবুল আলম খোকন তেপান্তরকে জানান, দীর্ঘদিন যাবত এলাকায় মাদক ব্যবসা চালিয়ে যাচ্ছে একটি চক্র। আমার কাছে একাধিকবার এই বিষয়ে নালিশ এসেছে। গতকালও সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তাকে এই বিষয়ে অবগত করেছি। করোনায় লকডাউনের সুযোগ নিয়ে মাদক ব্যাবসায়ীদের তৎপড়তা বৃদ্ধি পেয়েছে। ইমামবাগের এলাকাবাসী পক্ষ হতে মাদক ব্যবসায়ীদের একটা তালিকা এসেছে আমার কাছে। আমি তা প্রশাসনের বিভিন্ন জায়গায় পৌঁছে দিব।লিষ্টে মাদক ব্যবসায়ী হিসেবে ইমামবাগের বাদল মিয়া,শরিফ মিয়া,চার্লী বাবু,ইয়ার হোসেন,মামুন ও আপন দুই সহোদর জনি ও জুনায়েদ এর নাম উল্লেখযোগ্য।

ইমামবাগের স্থানীয় বাসিন্দা পুলিশ কর্মকর্তা বাবু আহমেদ জানান,এলাকায় কোন মাদক বিরুধী কমিটি না থাকায় মাদক ব্যবসায়ীদের তৎপড়তা বৃদ্ধি পেয়েছে।আজকে এই ঘটনাই বুঝা যায় মাদক ব্যবসায়ীরা কতটুকু শক্তিশালী ভাবে অবস্থান তৈরি করেছে এখানে।প্রশাসনের কঠোর নজরদারী প্রয়োজন এই এলাকায়।

এই ব্যপারে সদর থানার ওসি সেলিম উদ্দিন তেপান্তরকে বলেন,আমি ফোন পাওয়ার সাথে সাথে ফোর্স পাঠিয়েছি।ওই এলাকায় মাদক ব্যবসায়ীদের নামে অভিযোগ পেলে আমরা ব্যবস্থা নিব। এমনিতে মাদকের বিরুদ্ধে আমাদের অভিজান অব্যাহত আছে

তেপান্তরে প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।