করোনায় ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা ছাত্রলীগের এক নেতার একাধিক উদ্যোগ

১৫ এপ্রিল, ২০২০ : ৩:৪৯ অপরাহ্ণ ২৫০৭

আসাদুজ্জামান আসাদ: করোনাভাইরাসের সংক্রমণ রোধে ও মানুষের সাহায্যার্থে নিরন্তর চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক শাহাদাত হোসেন শোভন ।

তিনি করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে সরকারি নির্দেশনা আসার পর থেকেই নিজ উদ্যোগে একের পর এক কর্মসূচি বাস্তবায়ন করছেন।

জেলা শহরের বিভিন্ন স্থানে করোনাভাইরাস সম্পর্কে সচেতনতা সৃষ্টির লক্ষে মসজিদ, মন্দিরসহ এলাকার সাধারণ মানুষ, পথচারি, দোকানি, দিনমজুর, রিকশা-ভ্যান শ্রমিকদের মাঝে বিতরণ করেছেন হ্যান্ড স্যানিটাইজার, সাবান ও মাস্ক।
নিজে মাইকিং করেছেন পুরো পৌর এলাকায় করোনা সচেতনতা নিয়ে এবং বিভিন্ন ইউনিয়নে ও হয়েছে মাইকিং।
করোনার এই কঠিন মূহুর্তে মানবতার সেবায় সব সময়ের মত সব বাধা দূরে ঠেলে এগিয়ে গিয়েছেন মূমুর্ষ রুগিকে রক্ত দান করতে।

করোনায় লকডাউনের কারনে শ্রমিক সংকট মোকাবেলায় কৃষকের পাকা ধান ঘরে তোলার জন্য সহযোগিতার নির্দেশ দিয়েছেন ছাত্রলীগের প্রতিটা ইউনিটের নেতাকর্মীদের। নিজে দাঁড়িয়েছেন নিজ গ্রামের কৃষকদের পাশে।

খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করেছেন করোনায় কর্মহীন মানুষ সহ নিজ ছাত্রলীগের সমস্যায় থাকা নেতাকর্মীদের মাঝেও।

এরই ধারাবাহিকতায় গতকাল রাতে তার উদ্যোগে ও আর্থিক সহযোগিতায় ব্রাহ্মণবাড়িয়া পৌর এলাকার ভাদুঘর মহল্লায় দিনমজুর,অসচ্ছল ও করোনায় কর্মহীন ৬৫ পরিবারের ঘরে ঘরে খাদ্যসামগ্রী পৌছে দেওয়া হয়ছে। আর এই আয়োজনে সার্বিক ভাবে সহযোগিতা করেছে ভাদুঘর গ্রামের সন্তান, ব্রাহ্মণবাড়িয়া সরকারি কলেজের সাংগঠনিক সম্পাদক আকাশ আহমেদ।

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার জেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক শাহাদাত হোসেন শোভন এর এ কার্যক্র। সর্বমহলে ব্যাপক প্রশংসিত হচ্ছে।

এ ব্যাপারে শাহাদাত শোভন বলেন, আমরা সবাই যদি সচেতন হই, আর যার যার অবস্থান থেকে অন্যকে সচেতন করি তাহলে যেকোনো মহামারি থেকে বাংলাদেশের জনগণকে রক্ষা করা সম্ভব।আমি আমার অভিবাবক ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি ও ব্রাহ্মণবাড়িয়া ৩ আসনের এমপি র আ ম উবাদুল মোক্তাদির চৌধুরীর নির্দেশে কাজ করে যাচ্ছি।

তিনি আরো বলেন, সমাজের প্রতিটি মানুষ তার নিজ অবস্থান থেকে সচেতনামূলক ও সামাজিক কর্মকাণ্ডে এগিয়ে আসা উচিত।সামনে রমজান মাস তাই আবারো ইচ্ছা আছে করোনায় কর্মহীন বিপদে থাকা মানুষের মাঝে রমজানের খাবার বিতরণের।যদি সুস্থ থাকি ইনশাআল্লাহ করোনার সর্বশেষ অব্দি এইভাবেই মানুষের পাশে থেকে মানুষের জন্য কাজ করে যেতে চাই।
আর সমাজের সামর্থবান সবাইকে তাদের আশেপাশের গরীব-অসহায়দের পাশে দাঁড়ানোর অনুরোধ জানাচ্ছি।তাহলেই বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সোনার বাংলায় এই বিপদেও কেউ একবেলা না খেয়ে থাকবে না।

তেপান্তরে প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।