নবীনগরে পাওনা টাকা চাওয়ায় অসহায় বৃদ্ধা মহিলাকে মারধোর

২১ এপ্রিল, ২০২০ : ৬:১৮ অপরাহ্ণ ৭৮১

মোঃ সফর মিয়া,নবীনগর: ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নবীনগরে ৭০ বছর বয়সী এক অসহায় বিধবা বৃদ্ধা মহিলাকে পাওনা টাকা চাওয়ায় মেরে মাথা ফাটিয়ে দিয়েছে এলাকার এক প্রভাবশালী। সোমবার(২০/০৪)রাতে উপজেলার রসুল্লাবাদ ইউনিয়নের লহড়ী গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।নবীনগর সরকারি হাসপাতালে ভর্তি ওই অসহায় বৃদ্ধা মহিলার নাম মোসাম্মৎ আলেয়া খাতুন(৭০),স্বামী মৃত হোসেন মিয়া বাড়ি লহড়ী গ্রামের পশ্চিম পাড়ায়। পাওনা টাকা চাওয়ায় গ্রামের প্রভাবশালী মোতাহার মিয়ার ছেলে মো. শাহজাহান মিয়া ওই বৃদ্ধা মহিলাকে মারধর করেন।

জানা যায়, গ্রামের বৃদ্ধা অসহায় ওই বিধবা মহিলার একটি মাত্র ছেলে সে ভৈরব বাজারে চানাচুর বিক্রি করে। তার ছোট একটি কন্যা সন্তানকে ফেলে বহুদিন আগেই বাড়ি থেকে চলে যায়। মা সন্তানের কোন খোঁজ খবরই রাখে না । ক্ষুদ্র একখন্ড ভিটি বাড়িতে নাতিনকে নিয়ে কোন রকমে দিন যাপন করছেন ওই বৃদ্ধা। স্বামীর সঞ্চয়কৃত একমাত্র সম্বল ৫০ হাজার টাকা। বিগত ৫ বছর আগে ওই প্রভাবশালী শাহজাহান মিয়া পত্তনের উপরে এক বছরের জন্য ওই মহিলার কাছ থেকে ৫০ হাজার টাকা নেয়। কথা ছিল বছরে পত্তন বাবদ ৫০০০ টাকাসহ এক বছর শেষে ৫৫হাজার টাকা দিবে। কিন্তু ওই প্রভাবশালী বৃদ্ধাকে অসহায় পেয়ে দেম দিচ্ছি করে বিগত ৫ বছর হয়ে গেল কোন টাকাই দিচ্ছেন না।ওই বৃদ্ধা টাকা ফেরত পাবার জন্য অনেকের ধারে ধারে ঘুরেছেন কিন্তু টাকা ফেরত পাননি। সর্বশেষ সোমবার রাতে ওই বৃদ্ধা টাকা চাইতে তার বাড়িতে যান। টাকা চাওয়ায় উত্তেজিত হয়ে টাকা পাবে না বলে বৃদ্ধাকে মারধর করে মাথা ফাটিয়ে হাত ভেঙ্গে তাড়িয়ে দেয়। স্থানীয়রা আহত অবস্থায় তাকে হাসপাতালে প্রেরণ করে ।

নবীনগর হাসপাতালে টিএইচ ও ডাক্তার হাবিবুর রহমান জানান,ওই বৃদ্ধার মাথার অবস্থা প্রচন্ড খারাপ, সিটিক্যান করাতে হবে। বৃদ্ধা গরীব কোন টাকা পয়সা নেই, সেহেতু সে ঢাকা ও ব্রাহ্মণবাড়িয়া কোথাও যেতে পারছে না বিধায় প্রেসক্লাবে সভাপতির অনুরোধে হাসপাতলে ভর্তি রেখেই চিকিৎসা দিচ্ছি। নবীনগর প্রেসক্লাবের সভাপতি মাহাবুব আলম লিটন বলেন, সকালে আমার এক সহকর্মী বিষয়টি অবগত করে বলে হাসপাতালে থেকে তাকে রেফার করা হয়েছে কিন্তু বৃদ্ধার কেউ নেই, চিকিৎসা করার মত টাকা নেই ,আমি টিএইচও মহোদয়কে বৃদ্ধাকে এখানেই রেখে চিকিৎসা দিতে বলি। আমি আপনাদের মাধ্যমে আহবান জানাবো,সমাজের বিত্তবানরা এ বৃদ্ধার চিকিৎসার সাহায্যে এগিয়ে আসবেন এবং আইন শৃংখলা বাহিনীর কাছে অনুরোধ করব এ বৃদ্ধার পাওনা টাকা আদায়ে সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে দিবেন।

তেপান্তরে প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।