সরাইলে ১০ বছরের মাদ্রাসার ছাত্রকে বলাৎকারের অভিযোগ

২২ ফেব্রুয়ারি, ২০২১ : ২:১৮ অপরাহ্ণ ৩১১

তেপান্তর রিপোর্ট: ব্রাহ্মণবাড়িয়ার সরাইলে এক মাদরাসা ছাত্রকে(১০) বলাৎকারের অভিযোগে একই মাদরাসার ফজলে রাব্বী(১৫) নামের আরেক ছাত্রকে আটক করেছে পুলিশ।

রোববার (২১ ফেব্রুয়ারি) রাত সাড়ে ১১টায় কালীকচ্ছ চাঁনপুরের একটি মাদ্রাসা থেকে অভিযুক্ত ছাত্রকে পুলিশ আটক করেছেন বলে নিশ্চিত করেন সরাইল থানার এএসআই সামসুল হক।

আটক ফজলে রাব্বী নাসিরনগর উপজেলার আকবর আলীর ছেলে। সে ‘সিরাজবাগ নূরানী ও হাফেজীয়া মাদরাসা’র আমপারা শ্রেণীর ছাত্র।

পুলিশ ও পরিবার সূত্র জানায়, রবিবার সন্ধ্যা দিকে সিরাজবাগ নূরানী ও হাফেজীয়া মাদরাসা’র ছাত্ররা পার্শ্ববর্তী এলাকায় কালীকচ্ছ বর্ডার-বাজার বায়তুল জামে মসজিদের মাহফিলে ওয়াজ শুনতে যায়।
পরে সাড়ে ৬টার দিকে ফজলে রাব্বী নামের মাদ্রাসার ছাত্র ১০ বছরের ওই ছাত্রকে মুখে জাপ্টে ধরে মসজিদের ছাদে নিয়ে বলাৎকার করেন। রাতেই ওই ছাত্র তার মাদ্রাসার শিক্ষক ও তার নানুকে জানায়। পরে অভিযোগ পেয়ে পুলিশ অত্র মাদ্রাসা থেকে ফজলে রাব্বীকে আটক করেন।

এদিকে হাসপাতালের জরুরি বিভাগের চিকিৎসক আরিফুজ্জামান হিমেল জানান, ছাত্রটিকে বলাৎকারের অভিযোগে প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে। পরবর্তীতে ডাক্তারি পরীক্ষা-নিরীক্ষার জন্য হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। ওই ছাত্রের পায়ুপথে রক্তক্ষরণ হয়েছে। আপাতত কিছু বলা যাচ্ছে না, তবে সকালে সার্জারি বিভাগের কনসালটেন্ট ওই ছাত্রকে দেখে বিস্তারিত জানাতে পারবেন।

সরাইল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আল মামুন মুহাম্মদ নাজমুল আহমেদ ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, খবর পেয়ে এ ঘটনায় অভিযুক্ত ছাত্রকে মাদ্রাসা থেকে আটক করেছে পুলিশ। ভিকটিম মাদ্রাসার ছাত্র ব্রাহ্মণবাড়িয়া ২৫০শয্যাবিশিষ্ট জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি আছে। অভিযোগের ভিত্তিতে তদন্ত করে আইনি ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

তেপান্তরে প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

  • 73
    Shares