নবীনগরে ধর্ষণে অন্তঃসত্ত্বা নাবালিকার গর্ভপাতে ক্লিনিকের মালিক সহ গ্রেফতার ২

৪ মার্চ, ২০২১ : ২:১২ অপরাহ্ণ ২০০২

মো.সফর মিয়া: ব্রা‏হ্মণবাড়িয়ার নবীনগর উপজেলার নবীনগর পশ্চিম ইউনিয়নের ২নং ওয়ার্ড চরলাপাং নতুন পাড়ার নাবালিকা (১২) কে ধর্ষণ করে একই এলাকার মো. রনি মিয়া (১৯)। এতে ওই কিশোরী অন্তঃসত্তা হয়ে পড়লে রনি ও তার পরিবারের লোকজন তার (ধর্ষিতার) অবৈধ গর্ভপাত করান। এ ঘটনায় গর্ভপাতের অভিযোগে বুধবার (৩ মার্চ) পুলিশ মুক্তি প্রাইভেট হাসপাতালের মালিক মোঃ হাবিব সহ এক নার্স কে গ্রেফতার করেছে।

থানা সূত্রে জানা যায়, ধর্ষিতার পিতা বাদী হয়ে ২৮শে ফেব্রুয়ারি নবীনগর থানায় ৫ জনকে আসামি করে একটি এজাহার দাখিল করেন। পুলিশ মূল আসামি রনিকে গ্রেপ্তার করে গত সোমবার দুপুরে তাকে আদালতে সোপর্দ করে। পরে রনির দেয়া তথ্যমতে কিশোরীকে অবৈধ গর্ভপাত করানো সদরের মুক্তি প্রাইভেট হাসতাপালের মালিক মো. হাবিব ও নার্স মনোয়ারাকে গতকাল বুধবার রাতে আটক করে পুলিশ। আজ বৃহস্পতিবার তাদের কে আদালতে সোপর্দ করা হয়েছে।

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে নবীনগর থানার অফিসার ইনচার্জ মো. আমিনুর রশিদ জানান, মূল আসামীসহ মোট তিনজনকে আটক করে আদালতে সোপর্দ করা হয়েছে।

তেপান্তরে প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।