তাণ্ডব মামলার আসামীকে থানা থেকে ছাড়িয়ে নিলেন আ.লীগ নেত্রী

১৭ এপ্রিল, ২০২১ : ১২:৫৪ অপরাহ্ণ ৫৯৩

তেপান্তর রিপোর্ট: ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আশুগঞ্জে হেফাজতের তাণ্ডব মামলার গ্রেপ্তারকৃত আসামী শরীফপুর ইউনিয়ন বিএনপির অন্যতম নেতা দুলাল মিয়াকে ছাড়িয়ে নিয়ে গেছে আশুগঞ্জ উপজেলা মহিলা আ.লীগের সাধারণ সম্পাদক জোসনা চৌধুরী।

আশুগঞ্জে এই ঘটনাটি বিতর্কের জন্ম দেয়। অনেকে আ.লীগ নেত্রী বা পুলিশ কর্মকর্তাদের নিয়ে সমালোচনা করে বিভিন্ন মন্তব্যও করছেন।

খোঁজ নিয়ে জানা যায়, হেফাজত তাণ্ডব মামলার অজ্ঞাত আসামী শরীফপুর ইউনিয়ন বিএনপির নেতা দুলাল মিয়াকে বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় খোলাপাড়া বাজার থেকে গ্রেপ্তার করে আশুগঞ্জ থানার উপ-পরিদর্শক (এস আই) নুপুর সাহা ও উপ-পরিদর্শক (এস আই) ইকবাল হোসেনের নেতৃত্বে আশুগঞ্জ থানা পুলিশ।

গ্রেপ্তারের পর দুলালকে থানা হাজতে রাখার পর জোসনা চৌধুরী সুপারিশে ছাড়া পাই দুলাল।

এদিকে আশুগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ওসি জাবেদ মাহমুদ গ্রেপ্তারের বিষয়টি প্রথমে অস্বীকার করলেও পরে জানান, দুলালকে সন্দেহজনক ভাবে থানায় নিয়ে আসা হয়েছে। পরে তার ব্যাপারে খোঁজ খবর নিয়ে তার বিরুদ্ধে করা অভিযোগের সত্যতা না পেয়ে তাকে ছেড়ে দেওয়া হয়।

যদিও গ্রেপ্তারের সময় আসামীকে হাতকড়া পড়িয়ে থানায় নিয়ে যেতে দেখেন স্থানীয়রা।

আশুগঞ্জ উপজেলা মহিলা আ.লীগের সাধারণ সম্পাদক জোসনা চৌধুরী বলেন, সে আ.লীগের পরিবারের সদস্য, তার বিরুদ্ধে অভিযোগ সত্যতা না পেয়ে তাকে ছেড়ে দেন পুলিশ।

তবে শরীফপুর ইউনিয়ন আ.লীগের একাধিক নেতার সাথে কথা বলে জানা যায় দুলাল একজন সরকার বিরোধী সমর্থক।

তেপান্তরে প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।