আফতাব উদ্দিন চৌধুরীর ৩৬তম মৃত্যুবার্ষিকীতে অনলাইন কুইজ প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত

২৫ জুলাই, ২০২১ : ১২:৫৬ অপরাহ্ণ ২২৩

হুমায়ুন আহমেদ সৃজন: ময়মনসিংহের ভালুকায় মরহুম আফতাব উদ্দিন চৌধুরী চাঁন মিয়ার ৩৬তম মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে অনলাইনে বিশেষ কুইজ প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হয়েছে। করোনা মহামারীর কারনে এবার প্রতিবছরের মত আলোচনা সভা ও মিলাদ মাহফিল করতে না পারায় অনলাইনে এই কুইজ প্রতিযোগিতার আয়োজন করে আফতাব উদ্দিন ওয়েলফেয়ার ফাউন্ডেশন। প্রায় অর্ধশতাধিক প্রতিযোগী এতে অংশ নেয়, পরবর্তীতে সঠিক উত্তরদাতাদের মধ্য থেকে ৩ জনকে বিজয়ী ঘোষণা করা হয়। লকডাউনের পর করোনা পরিস্থিতি স্বাভাবিক হওয়ার পরে উক্ত প্রতিযোগিতায় বিজয়ীদের পুরষ্কার প্রদান করা হবে।

গত ২৪ জুলাই ভালুকার খান সাহেব আবেদ উল্যাহ চৌধুরী ও হালিমুন্নেছা চৌধুরানীর একমাত্র পুত্র আফতাব উদ্দিন চৌধুরী চাঁন মিয়ার ৩৬তম
মৃত্যুবার্ষিকীতে এই আয়োজন করা হয়। ১৯১২ সালে ময়মনসিংহের ভালুকায় জন্মগ্রহণ করেন তিনি। ১৯৮৫ সালের ২৪ জুলাই মৃত্যুর পূর্ব পর্যন্ত মরহুম আফতাব উদ্দিন চৌধুরী চাঁন মিয়া একাধারে ঢাকা- ময়মনসিংহ মহাসড়কের রূপকার, ভালুকা, গফরগাঁও ও ফুলবাড়িয়া থেকে রেকর্ড ভোটে নির্বাচিত তৎকালীন পাকিস্তান জাতীয় পরিষদের সদস্য(এম এন এ) ও কেন্দ্রীয় মুসলিম লীগের সহ সভাপতি, সাবেক বাংলাদেশ জাতীয় সংসদ সদস্য (এমপি), বৃহত্তর ময়মনসিংহ জেলা নিয়ে গঠিত জেলা পরিষদ সদস্য, মল্লিকবাড়ী ইউনিয়ন বোর্ডের আজীবন প্রেসিডেন্ট, পরবর্তীতে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত মল্লিকবাড়ী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান, ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজের প্রতিষ্ঠাতা সদস্য, ময়মনসিংহ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের সিন্ডিকেট সদস্য, গফরগাঁও সরকারি কলেজের প্রতিষ্ঠাতা, ভালুকা পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রতিষ্ঠাতা ও জমিদাতা, বিভিন্ন স্কুল কলেজ ও মসজিদ মাদ্রাসার দাতা ও প্রতিষ্ঠাতা, ভালুকা বড় মসজিদ ও ঈদগাহ ময়দানের মোতাওয়াল্লি ও আজীবন সভাপতি ও বিশিষ্ট সমাজসেবক ছিলেন।আগামী বছর থেকে নিয়মিত মরহুম আফতাব উদ্দিন চৌধুরী চাঁন মিয়ার কর্মময় জীবনের নানা দিক নিয়ে বিভিন্ন প্রশ্ন সংবলিত এই প্রতিযোগীতা অনুষ্ঠান আয়োজন করা হবে বলে জানিয়েছে আফতাব ওয়েলফেয়ার ফাউন্ডেশন।

তেপান্তরে প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।