কবিতা: শেষের পাতা

২৪ নভেম্বর, ২০১৯ : ১:৪৫ অপরাহ্ণ ১১৯০

কাজী মহিবুল হাসান

একত্রিশটি বৃহস্পতি একে একে পেরিয়ে গেলো
কিন্তু তুমি এলে না_ ঘুম কি করে আসিবে
শোকের কালিতে লেপ্টে থাকা
ঐ আঁখি পল্লবে? বলো,
আমার সবরাত খোয়া গেছে,
চোখের জল অভিনয়, ভালোবাসা মিছে।
অনেক ঘুম চোখে, ঘুমের দারুণ নিশাচর
আহরণ করে আছি বুকে।

মরীচিকাময় বৃহস্পতির একেকটা রাত
এসেছিলো যে,প্রাচ্যের অভিশাপ নিয়ে…
কি যে ভয়ংকর রাত,কি অন্ধকার,গাঢ় রাত নিয়ে ঘরে
তার মধ্যখানে আমার সামান্য হারিকেনের চিমটি আলোটা
যেন অতি তুচ্ছ।

সে আমারে আমাকে দেখিতে দেয়না
অশরীরী আত্মার মত আমার শরীর জুড়ে তার বাস !
চারদিকে ভেসে উঠে তার মুখখানা,মন আমার আতসী কাঁচ।
তাকে চাইলেই দূরে রাখা যাই না, বন্ধ হয়ে আসে শ্বাস।
ভুলিতে চাইলে নিজেকে ভোলা যায় তাকে না
তখন জীবন মৃত্যুর সন্ধিক্ষণে তফাৎ খুঁজে পাই না।

শেষের পাতা,
একটা বিজয় দিবসে অভিমান অন্তপ্রাণ যুবকের
দেশত্যাগী গল্প কথা _
একটা আহত কবির ছন্দপতন,শব্দ ভান্ডারের চির সমাপ্ততা।
একটা নিরহ স্পন্দনের বোবাকান্না,আত্ম চিৎকার।
একটা ব্যার্থ প্রেমীকের লাঞ্ছিত হৃদয়ে নগ্ন শহরের কোন কোনে বসে শোকের বিলাসিতায় মগ্ন হওয়া।
একটা পরাজিত মানুষের হাতে আলোর মশাল
তার নিচে তিমির আঁধার।

শেষের পাতা, একটা নির্ভীক ভালোবাসার নামে
স্বরচিত কান্না তথা _
মহান মৃত্যুকে ভালোবাসি, আলিঙ্গন করি,মনপ্রাণ ভরে তার সাধ আহরণ করিব বলে সোডিয়ামের আলো গা মেখে নিশুতি পোহাই।

সাইরেন টা বাজিলে যেন সে দেখিতে পাই যদি, ভুল ভাঙে এসো মোর পানে
ডাক দিও সেই ক্ষণে চুপিসারে কানে কানে…
আমি দেহত্যাগী কলম হয়ে মরণ আলিঙ্গন ছেড়ে
লিখে দিব তোমায় এককাব্য, ভালোবাসা যার নাম।
যদি তোমার খুব কষ্ট না হয়_
তবে দোলন গুচ্ছ নাই-বা দিলে,কোন পবিত্রবানী পাঠে নাহয় চুকিয়ে নিও শেষ দাম।।

মনে পড়ে হাজার প্রশ্ন ছিলো কর্ণপাত করিলে না?
অগণিত উত্তরে সাজিয়ে ছিলেম হৃদঢালা,
কভু জানতে চাইলে না;।
আমার একটা বিশেষ দিনে কথা দিয়েছিলে
যা কিছুই ঘটে যাকনা কেন কখনো তুমি ছেড়ে দিবে না;।
আজ ধপাস করে মারিলে?
তোমার কাছে বহুরূপী গিরগিটি ও হেরেছে।

আমি নাহয় একটা মন্দ, চরিত্রহীন, অমানুষ ছিলাম।
কিন্তু তুমি যে বিচক্ষণ ছিলে?
কি এমন ক্ষতি হত তোমার
যদি,একটা ডাকে সাড়া দিতে আমার?
তখন তোমার কোন ক্ষতি হত না বরং
একটা অমানুষ মানুষ হয়ে যেত,
একটা উর্বশীর প্রেমিক বেঁচে যেত,
একটা মানসিক, পথভ্রষ্ট রোগী হয়তো
চির শান্তির আশ্রম খুঁজে পেত।

আজ ভীষণ ক্লান্ত, ঘুমের নেশা ধরেছে।
তুমি আসিবে ঠিকই আজ নাহয় কাল।
সেদিন এসে দেখিতে পাবে হয়তো
স্বপ্নের বৃহস্পতিতে বেমালুম ঘুমচ্ছি
মাতাল ধূপগন্ধি ছড়িয়ে।

তেপান্তরে প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।